মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

জেবিবিএর সমাবেশে

‘প্রবাসীদের ব্যালট যুদ্ধে অবতীর্ণ হবার আহবান’

প্রকাশ: ২১ এপ্রিল ২০২২ | ৮:০৩ অপরাহ্ণ আপডেট: ২১ এপ্রিল ২০২২ | ৮:০৩ অপরাহ্ণ
‘প্রবাসীদের ব্যালট যুদ্ধে অবতীর্ণ হবার আহবান’

কম্যুনিটিটিভিত্তিক অধিকার ও মর্যাদা সুসংহত করার স্বার্থে সকলকে কেন্দ্রে গিয়ে পছন্দের প্রার্থীকে ভোট প্রদান করতে হবে। অন্যথায় কম্যুনিটি যত বড়ই হউক তা কোন ধরনের গুরুত্ব পাবে না ফেডারেল, স্টেট অথবা সিটি প্রশাসনে। ভোটের হিসাবকেই ন্যায্য হিস্যার অন্যতম অবলম্বন হিসেবে বিবেচনা করা হয় মার্কিন প্রশাসনে।

এসব তথ্য উপস্থাপন করেন জেবিবিএর সভাপতি ও মূলধারার রাজনীতিক গিয়াস আহমেদ। এ সময় নিউইয়র্ক স্টেট এ্যাসেম্বলী ডিস্ট্রিক্ট-৩৫ এ থেকে ডেমক্র্যাটিক পার্টির মনোনয়ন দৌড়ে অবতীর্ণ হায়রাম মনসেরাত আরো বলেন, ভোট ভোট ভোট-এটি পরম সত্য। আপনি ভোট দিলেই আমেরিকার সবকিছুর ন্যায্য হকদার হবেন। তাই ২৮ জুনে দলীয় প্রার্থী বাছাইয়ের নির্বাচনে বিপুলভাবে কেন্দ্রে যেতে হবে। তাহলেই আমার পক্ষে আপনাদের যাবতীয় সমস্যা সমাধানে কাজ করা সহজ হবে।

কম্যুনিটি লিডার ডা. মাসুদুর রহমান বাংলাদেশি আমেরিকানকে ঐক্যবদ্ধ হবার তাগিদ দেন আমেরিকান স্বপ্ন পূরণের পথ সুগম করতে।

২০ এপ্রিল বুধবার জেবিবিএর ইফতার-পূর্ব সংক্ষিপ্ত এক আলোচনা সভায় তারা এমন অভিমত পোষণ করেন। এ সময় জ্যাকসন হাইটস সংলগ্ন পুলিশ প্রেসিঙ্কট-১১৫ এর কমান্ডিং অফিসার জামিল এস আলতাহেরী, ডেমক্র্যাটিক পার্টির ডিস্ট্রিক্ট লিডার প্রার্থী শাহনেওয়াজ এবং মাজেদা এ উদ্দিন এবং জেবিবিএর সেক্রেটারি তারেক খানও সবকিছুর উর্দ্ধে উঠে সকলকে ঐক্যবদ্ধ হবার তাগিদ দেন।

অনুষ্ঠানে জ্যাকসন হাইটস বাংলাদেশি বিজনেস এসোসিয়েশন (জেবিবিএ)’র এ অংশের সকল কর্মকর্তা ছাড়াও বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার প্রতিনিধিত্বকারি বিপুলসংখ্যক প্রবাসীর সমাগম ঘটেছিল। নারীরাও ছিলেন সরব। সকলেই বিশেষ মোনাজাতে মিলিত হয়ে বিশ্ব মানবতার কল্যাণে পরম করুণাময়ের দয়া প্রার্থনা করেন।

উল্লেখ্য, এর আগে জেবিবিএর অপর গ্রুপের (হারুন-ফাহাদ) ইফতার মাহফিলেও মূলধারার রাজনীতিকরা একই আহবান জানিয়েছেন।

সম্পর্কিত পোস্ট