বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ১০ শ্রাবণ ১৪৩১

পিসিআর পরীক্ষার প্রয়োজন নেই মালদ্বীপ ভ্রমনে

প্রকাশ: ৫ মার্চ ২০২২ | ১২:৫২ অপরাহ্ণ আপডেট: ৫ মার্চ ২০২২ | ১২:৫২ অপরাহ্ণ
পিসিআর পরীক্ষার প্রয়োজন নেই মালদ্বীপ ভ্রমনে

করোনা সংক্রমণের ঝুঁকি রোধে যাদের সম্পূর্ণ টিকা দেওয়া হয়ে গেছে তাদেরকে মালদ্বীপ ভ্রমনে গিয়ে (পিসিআর) পরীক্ষা র নেগেটিভ সাটিফিকেট দেখাতে হবেনা। মালদ্বীপের স্বাস্থ্য সুরক্ষা সংস্থা (এইচপিএ) শুক্রবার (৪ মার্চ) তথ্যটি জানিয়েছে।

জনস্বাস্থ্যের মহাপরিচালক মাইমুনা আবুবকর স্বাক্ষরিত ঘোষণায় বলা হয়ে, মালদ্বীপ ফুড অ্যান্ড ড্রাগ অথরিটি (এমএফডিএ) অনুমোদিত যাদের ডোজ পাওয়ার ১৪ দিন পেরিয়ে গেছে তাদের আর পিসিআর পরীক্ষার প্রমাণ (সার্টিফিকেট) দেখাতে হবে না।

ঘোষণায় আরও উল্লেখ করা হয়েছে, গেস্টহাউস ও অন্যান্য দ্বীপগুলোতে অবস্থানরত পর্যটকদের মালদ্বীপ থেকে প্রস্থান করার আগে আর পিসিআর পরীক্ষা করতে হবে না।

নির্দেশনায় বলা হয়, কোনো যাত্রী যদি করোনা প্রতিরোধ টিকার পূর্ণাঙ্গ ডোজ (বুস্টার ডোজ প্রয়োজন নেই) নিয়ে থাকে, সেক্ষেত্রে আজ ৫ মার্চ থেকে সেসব যাত্রীর মালদ্বীপ ভ্রমণের আগে আরটি-পিসিআর টেস্টের বাধ্যবাধকতা প্রত্যাহার করা হয়েছে।

এছাড়া কোনো যাত্রী যদি মালদ্বীপের বিমানবন্দরে নেমে সরাসরি কোনো দ্বীপের রিসোর্টে চলে যান, সেক্ষেত্রেও তার জন্য করোনা টেস্ট বা টিকার কোনো বাধ্যবাধকতা নেই।

তবে মালদ্বীপের নাগরিক ও ওয়ার্ক পারমিটধারী, যারা বিভিন্ন দেশ থেকে মালদ্বীপে প্রবেশ করবেন তাদের ভ্রমণের তিন থেকে পাঁচ দিন আগে করোনা টেস্ট করে নেগেটিভ সনদ নিতে হবে।

করোনায় আক্রান্ত কিংবা মৃতের সংখ্যা শূন্যের কোটায়। এ কারণে বেশ কিছু দিন আগে থেকে আরোপিত নিষেধাজ্ঞা একের পর এক শিথিল করছে মালদ্বীপ সরকার।

২০১৯ সালের ডিসেম্বরের শেষ সপ্তাহে চীনের হুবেই প্রদেশের উহান থেকে করোনাভাইরাস সংক্রমণ শুরু হয়। এখন পর্যন্ত বাংলাদেশসহ বিশ্বের ২২৪টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে ভাইরাসটি।

সংলাপ ০৫/০৩/০০২ আজিজ

সম্পর্কিত পোস্ট