শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

দুবাই ফেরা হলো না শহীদের

প্রকাশ: ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৬:৫৪ অপরাহ্ণ আপডেট: ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৬:৫৪ অপরাহ্ণ
দুবাই ফেরা হলো না শহীদের

সংযুক্ত আরব আমিরাত থেকে দেশে ছুটিতে গিয়েছিলেন চট্টগ্রামের হাটহাজারী শহীদুল ইসলাম (৩৫)। করোনায় আকাশ পথে যোগাযোগ বন্ধ থাকায় ফেরা হয়নি তার। অপেক্ষা করছিলেন বিমানবন্দরের র‌্যাপিট করোনা টেস্ট ল্যাব স্থাপন হলে তবেই ফিরে আসবেন কর্মস্থলে। কিন্তু শহীদুল ইসলামের আর দুবাই ফেরা হলো না।
গত শনিবার বাঁশখালীতে এক মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় মারা গেছেন এই প্রবাসী। শহীদ হাটহাজারী উপজেলার মির্জাপুর ইউনিয়নের ৩ নম্বর ওয়ার্ডের হাজী নুরুজ্জামাম চৌধুরী বাড়ির তাজুল ইসলামের ছেলে।
জানা গেছে, গত শনিবার ( ২৫ সেপ্টেম্বর) সকাল ৭ টার দিকে বাঁশখালীর চাম্বল দারুল উলুম আইনুল ইসলাম মাদ্রাসার সামনে এই দুর্ঘটনা ঘটে। এই ঘটনায় আহত হয়েছেন আবদুল মাবুদ (৩৭) নামের আরও একজন। প্রথমে তাদের বাঁশখালীর স্কয়ার ক্লিনিকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে চমেক হাসপাতালে পাঠানো হয়। চমেক হাসপাতালের জরুরি বিভাগে শহীদুল ইসলাম মারা যান।

চমেক হাসপাতালে পুলিশ ফাঁড়ির দায়িত্বরত পুলিশ পরিদর্শক (এসআই) নুরুল আলম বলেন, চমেক হাসপাতালের জরুরি বিভাগে চিকিৎসারত অবস্থায় দুপুর ১২টার দিকে শহীদের মৃত্যু হয়।

হাটহাজারীর ৩ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মুহাম্মদ আলী বলেন, শহীদুল ইসলাম কিছুদিন আগে সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাই থেকে দেশে আসেন। কয়েকদিন পর তার দুবাই চলে যাওয়ার কথা ছিল। সেজন্য প্রস্তুতিও নিচ্ছিলেন তিনি।

তিনি আরও বলেন, চলে যাওয়ার আগে তার ইচ্ছা ছিল কুতুবদিয়ার মালেক শাহ’র মাজার জেয়ারত করবেন। তাই শনিবার সকালে হাটহাজারী থেকে মোটরসাইকেল যোগে রওয়ানা দেন কুতুবদিয়ায় মাজার জেয়ারতের উদ্দেশ্যে। কিন্তু বাঁশখালীর চাম্বল বড় মাদ্রাসা এলাকায় পৌঁছলে তিনি সড়ক দুর্ঘটনার কবলে পড়েন।

সম্পর্কিত পোস্ট