সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ৩ আষাঢ় ১৪৩১

ইসরায়েল-হামাস যুদ্ধবিরতি পরিকল্পনায় সমর্থন দিতে নিরাপত্তা পরিষদকে যুক্তরাষ্ট্রের আহ্বান

প্রকাশ: ৫ জুন ২০২৪ | ৫:৫৮ অপরাহ্ণ আপডেট: ৫ জুন ২০২৪ | ৫:৫৮ অপরাহ্ণ
ইসরায়েল-হামাস যুদ্ধবিরতি পরিকল্পনায় সমর্থন দিতে নিরাপত্তা পরিষদকে যুক্তরাষ্ট্রের আহ্বান

জো বাইডেন কর্তৃক গেল সপ্তাহে উত্থাপিত ইসরায়েল-হামাস যুদ্ধবিরতি পরিকল্পনাকে সমর্থন করে যুক্তরাষ্ট্র সোমবার (৩ জুন) নিরাপত্তা পরিষদের একটি খসড়া প্রস্তাব ঘোষণা করেছে এবং হামাসকে তা মেনে নেয়ার আহ্বান জানিয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত লিন্ডা থমাস-গ্রিনফিল্ড বলেছেন, ‘মধ্যপ্রাচ্য অঞ্চলসহ বহু নেতা ও সরকার এ পরিকল্পনাকে সমর্থন করেছে।’

এএফপির দেখা খসড়া প্রস্তাবে ৩১ মে ঘোষিত নয়া চুক্তিকে স্বাগত জানানো হয় এবং হামাসকে সম্পূণরুপে এটি গ্রহণ করার ও বিলম্ব না করে শর্ত ছাড়াই প্রস্তাবের শর্তাবলী বাস্তবায়নের আহ্বান জানানো হয়েছে।

বাইডেন শুক্রবার (৩১ মে) রূপরেখা দিয়েছেন, এতে তিনি ইসরায়েলি পরিকল্পনায় বলেছেন তিনটি পর্যায়ে রক্তক্ষয়ী সংঘাতের অবসান ঘটাবে, সব জিম্মি মুক্ত হবে ও ক্ষমতায় হামাসের উপস্থিতি ছাড়াই বিধ্বস্ত ফিলিস্তিনি ভূখন্ডের পুনর্গঠনের দিকে পরিচালিত করবে। যদিও, দুই মিত্রের মধ্যে ফাটল দেখা দেয়, যখন ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর কার্যালয় জোর দিয়েছিল যে, হামাসের সামরিক ও শাসন ক্ষমতার ধ্বংসসহ ইসরায়েলের সব ‘লক্ষ্য অর্জন’ না হওয়া পর্যন্ত গাজায় চলমান যুদ্ধ অব্যাহত থাকবে।

বাইডেনের যুদ্ধবিরতির বক্তৃতা ও নেতানিয়াহুর দলের সঙ্গে কিছু জরুরি ব্যাপার কতটা সমন্বিত হয়েছিল, যুদ্ধবিরতি কত দিন চলবে এবং কতজন বন্দীকে মুক্তি দেয়া হবে ও কখন মুক্তি পাবে- এ নিয়ে ইসরায়েলি মিডিয়া প্রশ্ন করেছে।

সোমবারের (৩ জুন) আগে হোয়াইট হাউস বলেছিল, বাইডেন মধ্যস্থতাকারী কাতারের আমিরকে বলেছেন, ‘তিনি হামাসকে গাজায় ‘সম্পূর্ণ যুদ্ধবিরতির একমাত্র বাধা’ হিসেবে দেখেছেন এবং প্রস্তাবটি মেনে নেয়ার জন্য হামাসকে চাপ দেয়ার জন্য আমিরকে আহ্বান জানিয়েছেন।’

হামাস গেল সপ্তাহে বলেছে, ‘তারা বাইডেনের রূপরেখাকে ‘ইতিবাচকভাবে’ দেখেছে। কিন্তু, তারপর থেকে স্থবির আলোচনার ব্যাপারে কোন আনুষ্ঠানিক মন্তব্য করেনি, যদিও মধ্যস্থতাকারী কাতার, মিশর ও যুক্তরাষ্ট্র কোন নয়া আলোচনা ঘোষণা করেনি।

বাইডেন শুক্রবারের (৩১ মে) তার ঘোষণার আগে আন্তর্জাতিক আদালতের সাম্প্রতিক আদেশের উল্লেখ করে আলজেরিয়া গেল সপ্তাহে একটি খসড়া রেজোলিউশন প্রচার করেছিল, যাতে তাৎক্ষণিক যুদ্ধবিরতি ও দক্ষিণ গাজা শহর রাফাহতে ইসরায়েলের আক্রমণ বন্ধের আহ্বান জানিয়েছে।

সম্পর্কিত পোস্ট